ভয়েস অব পটিয়াঃ মন্ত্রী যাবে জানতেন না টেম্পো চালক মোহাম্মদ তসলিম (২০)। পরিবারের সদস্যদের আহার যোগাতে প্রতিদিনের মত টেম্পো নিয়ে সকালে বেরিয়ে পড়ে রাস্তায়। শুক্রবার সকালে চট্টগ্রামের পটিয়া হাইওয়ে ক্রসিং এলাকায় পৌঁছা মাত্র পুলিশ সিগন্যাল দিয়ে তসলিমের টেম্পোটি থামায়। কিছু বুঝে ওঠার আগেই পটিয়া হাইওয়ে পুলিশের ইনচার্জ মোহাম্মদ শফিক কমান্ডো স্টাইলে টেম্পো চালকের চুলের মুটি ধরে বেধড়ক পেটাতে থাকে। ওই সময় চিৎকার করে পুলিশ ইনচার্জ শফিক বলতে থাকেন ‘বেটা মন্ত্রী যাবে জানিস না’। মারতে মারতে এক পর্যায়ে চালকসহ টেম্পোটি পুলিশ ফাঁড়ির অভ্যন্তরে নিয়ে যায়।

ভয়েস অব পটিয়া পটিয়া সংবাদ পটিয়া নিউজ

ভয়েস অব পটিয়া-বিশেষ প্রতিনিধিঃ মন্ত্রী যাবে জানতেন না টেম্পো চালক মোহাম্মদ তসলিম (২০)। পরিবারের সদস্যদের আহার যোগাতে প্রতিদিনের মত টেম্পো নিয়ে সকালে বেরিয়ে পড়ে রাস্তায়। শুক্রবার সকালে চট্টগ্রামের পটিয়া হাইওয়ে ক্রসিং এলাকায় পৌঁছা মাত্র পুলিশ সিগন্যাল দিয়ে তসলিমের টেম্পোটি থামায়। কিছু বুঝে ওঠার আগেই পটিয়া হাইওয়ে পুলিশের ইনচার্জ মোহাম্মদ শফিক কমান্ডো স্টাইলে টেম্পো চালকের চুলের মুটি ধরে বেধড়ক পেটাতে থাকে। ওই সময় চিৎকার করে পুলিশ ইনচার্জ শফিক বলতে থাকেন ‘বেটা মন্ত্রী যাবে জানিস না’। মারতে মারতে এক পর্যায়ে চালকসহ টেম্পোটি পুলিশ ফাঁড়ির অভ্যন্তরে নিয়ে যায়। 

জানা যায়, টেম্পো চালক উপজেলার চরলক্ষ্যা ইউনিয়নের আবুল ফয়েজের পুত্র।

প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা যায়, সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রী ওবায়দুল কাদের শুক্রবার সকালে চট্টগ্রাম-কক্সবাজার আরাকান মহাসড়ক হয়ে কক্সবাজার যাওয়ার কথা ছিল। সকাল থেকেই মহাসড়কে নিষিদ্ধ সিএনজি ছাড়াও ফিটনেসবিহীন গাড়ি চলাচল হাইওয়ে পুলিশ বন্ধ করে দেয়। ফলে যাত্রী সাধারণ চরম দুর্ভোগে পড়ে। অনেকে রোগী নিয়ে বের হতে চাইলেও গাড়ির অভাবে বের হতে পারেননি।

এদিকে, সড়ক ও জনপথ বিভাগের কর্মকর্তা-কর্মচারীরা বৃহস্পতিবার থেকে শুক্রবার পর্যন্ত টানা দুইদিন আরকান সড়কের ভাঙা অংশ ইট বালি দিয়ে মেরামত করতে দেখা গেছে। বিকেলে মন্ত্রীর কর্মসূচি বাতিল হওয়ার বিষয়টি জানতে পারে হাঁফ ছেড়ে বাঁচে ভোগান্তির শিকার সাধারণ যাত্রী ও প্রশাসনের কর্মকর্তা-কর্মচারীরা। 

উপজেলার থানা মহিরা গ্রামের রিক্সা চালক আবদুল মোনাফ (৬০) ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন, গ্রামীণ পথ থেকে খালি রিক্সা নিয়ে সামান্য মহা সড়কে ওঠা মাত্রই মন্ত্রী যাওয়ার ইস্যুতে তার রিক্সাটি দিনভর পুলিশ ফাঁড়িতে আটকে রাখে। তিনি দুপুরে ভাতও খাননি বলে ঘটনাস্থলে জানান।

Share To:

Voice of Patiya

Post A Comment:

0 comments so far,add yours

Note: Only a member of this blog may post a comment.