ভয়েস অব পটিয়াঃ করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত রোগীদের চিকিৎসাসেবা নিশ্চিতে চট্টগ্রামের হাসপাতালগুলোকে ২০টি ভেন্টিলেটর দিয়েছে দেশের শীর্ষস্থানীয় শিল্পগ্রুপ টি.কে. গ্রুপ।

করোনা : চট্টগ্রামের হাসপাতালগুলোকে ২০টি ভেন্টিলেটর দিলো টি.কে. গ্রুপ;  চট্টগ্রাম মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল, টিকে গ্রুপ, পটিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স; পটিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ কমপ্লেক্স; করোনা, করোনা ভাইরাস, কোভিড, কোভিড১৯, স্যানিটাইজার, কেরু এন্ড কোম্পানী, ফৌজদারহাট, বাংলাদেশ ইনস্টিটিউট অব ট্রপিকাল এন্ড ইনফেকশাস ডিজিডেজ, বিআইটিআইডি; চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল, চমেক, চট্টগ্রাম জেনারেল হাসপাতাল, চট্টগ্রাম ফিল্ড হাসপাতাল, সার্জিস্কোপ হাসপাতাল, পার্কভিউ হাসপাতাল, Chittagong, Chattogram Medical College Hospital, CMCH, Chattogram General Hospital, Chattogram Field Hospital, Surgiscop Hospital, Parkview Hospital Corona, Corona Virus, Covid, Covid19, Sanitizer, Carew and Company; Bangladesh Institute of Tropical and Infectious Disease, BITID, IEDCR
ছবি: করোনা চিকিৎসায় চট্টগ্রামের হাসপাতালগুলোর জন্য জেলা প্রশাসকের নিকট ভেন্টিলেটর হস্তান্তর করছে টি.কে. গ্রুপ
ভয়েস অব পটিয়া-নিউজ ডেস্কঃ করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত রোগীদের চিকিৎসাসেবা নিশ্চিতে চট্টগ্রামের হাসপাতালগুলোকে ২০টি ভেন্টিলেটর দিয়েছে দেশের শীর্ষস্থানীয় শিল্পগ্রুপ টি.কে. গ্রুপ।

আজ শুক্রবার (১৯ জুন) দুপুরে চট্টগ্রাম সার্কিট হাউস মিলনায়তনে চট্টগ্রামের জেলা প্রশাসক মোঃ ইলিয়াস হোসেনের নিকট এসব ভেন্টিলেটর হস্তান্তর করেন টি.কে. গ্রুপের পরিচালক (মার্কেটিং) মোঃ মোফাচ্ছেল হক। উক্ত হস্তান্তর অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন চট্টগ্রামের অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট ড. বদিউল আলম, সিভিল সার্জন ডা. শেখ ফজলে রাব্বিসহ জেলা প্রশাসন ও স্বাস্থ্য বিভাগের কর্মকর্তারা।

টি.কে. গ্রুপের দেওয়া ২০টি ভেন্টিলেটরের মধ্যে চট্টগ্রাম মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ১০টি, চট্টগ্রাম জেনারেল হাসপাতালে ৩টি, চট্টগ্রাম ফিল্ড হাসপাতালে ৩টি, বেসরকারী সার্জিস্কোপ হাসপাতালে ২টি এবং বেসরকারী পার্কভিউ হাসপাতালে ২টি করে হস্তান্তর করা হয়।

টিকে গ্রুপের পরিচালক (মার্কেটিং) মোঃ মোফাচ্ছেল হক জানান, ‘দেশে করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ শুরুর পর থেকে সামাজিক দায়বদ্ধতার অংশ হিসেবে অসহায় মানুষের দিকে সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিয়েছে টি.কে. গ্রুপ। চট্টগ্রামে করোনা রোগী দ্রুত বাড়তে থাকায় তাদের চিকিৎসার জন্য টি.কে. গ্রুপের এমডি স্যারের নির্দেশে চীন থেকে ২০টি ভেন্টিলেটর আমদানি করে তা আমরা চট্টগ্রাম জেলা প্রশাসনের নিকট হস্তান্তর করেছি। এসব ভেন্টিলেটর চট্টগ্রামের করোনা ডেডিকেটেড হাসপাতালে যুক্ত হলে করোনাক্রান্ত রোগীদের চিকিৎসা দেওয়া আরও সহজ হবে।’

গত ০৩ এপ্রিল চট্টগ্রাম নগরীর দামপাড়া এলাকায় ষাটোর্ধ্ব এক ব্যক্তির শরীরে প্রথম করোনা ভাইরাস শনাক্ত হয়। সর্বশেষ আজ ১৯ জুন শুক্রবার সকালে সিভিল সার্জন কার্যালয়ের দেওয়া তথ্য অনুযায়ী চট্টগ্রামে এখন করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা ৫ হাজার ৯১১ জন। করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা বাড়তে থাকায় তাদের চিকিৎসা সেবা দিতে হিমশিম খেতে হচ্ছে স্বাস্থ্যবিভাগকে। আইসিইউ, ভেন্টিলেটর, সেন্ট্রাল অক্সিজেন সিস্টেমের সংকট থাকায় করোনায় আক্রান্ত হয়ে মৃত্যুর সংখ্যাও বাড়ছে। এহেন পরিস্থিতিতে সরকারি উদ্যোগের পাশাপাশি এস. আলম গ্রুপ, সিকমসহ চট্টগ্রামের বিভিন্ন শিল্প গ্রুপ করোনাক্রান্ত রোগীদের চিকিৎসায় আইসোলেশন সেন্টার তৈরি, অক্সিজেন সাপ্লাই সিস্টেম, ভেন্টিলেটরসহ চট্টগ্রামের হাসপাতালগুলোকে বিভিন্ন চিকিৎসা সামগ্রী প্রদান করছে।

আরও পড়ুন >>  চট্টগ্রাম জেনারেল হাসপাতালে সেন্ট্রাল অক্সিজেন সিস্টেম স্থাপন করে দিচ্ছে এস. আলম গ্রুপ


জাতীয়-আন্তর্জাতিক-চট্টগ্রামের সংবাদসহ পটিয়া সম্পর্কে জানতে ও জানাতে আমাদের ফেসবুক পেজের সাথে থাকুন।
Share To:

Voice of Patiya

Post A Comment:

0 comments so far,add yours

Note: Only a member of this blog may post a comment.